Home / দেশের খবর / পুলিশ নিয়ে বিয়েতে গিয়ে চমকে গেলেন এসিল্যান্ড

পুলিশ নিয়ে বিয়েতে গিয়ে চমকে গেলেন এসিল্যান্ড

অনলাইন নিউজ ডেস্ক

সিরাজগঞ্জে এক রাতে তিনটি বাল্যবিয়ে বন্ধ করেছেন এসিল্যান্ড মো. আনিসুর রহমান। এ সময় বর ও কনের বাবাকে জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

শুক্রবার রাতে সদর উপজেলার কান্দাপাড়া, ডুমুর গোলামী ও খলিশাকুড়া গ্রামে অভিযান চালিয়ে এসব বাল্যবিয়ে বন্ধ করেন সদর উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. আনিসুর রহমান।

mil

এসিল্যান্ড আনিসুর রহমান, শুক্রবার বিকেলে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সদর উপজেলার কালিয়া হরিপুর ইউনিয়নের কান্দাপাড়া গ্রামে অভিযান চালানো হয়। পুলিশ নিয়ে বিয়েবাড়িতে গিয়ে অবাক হই আমরা। কারণ কান্দাপাড়া গ্রামের বাসিন্দা আবু সাইদের মেয়ে অষ্টম শ্রেণির ছাত্রী শান্তি খাতুনের (১৩) সঙ্গে শহরের রায়পুর এলাকার রফিকুল ইসলামের ছেলে রেজাউল করিমের (৩১) বিয়ের আয়োজন চলছিল।

কনে এবং ছেলের বয়সের পার্থক্য অনেক। কাজেই কনে অপ্রাপ্তবয়স্ক হওয়ায় এ বাল্যবিয়ে বন্ধ করে দেয়া হয়। সেই সঙ্গে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে বর রেজাউল করিম ও কনের বাবা আবু সাইদকে পাঁচ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়।

আনিসুর রহমান বলেন, একই দিন সন্ধ্যায় বহুলী ইউনিয়নের ডুমুর গোলামী গ্রামের আশরাফ আলীর বাড়িতে অভিযান চালানো হয়। আশরাফ আলীর মেয়ে আয়েশা খাতুনের (১৩) সঙ্গে রায়গঞ্জ উপজেলার বামনবাগ গ্রামের আ. সামাদের ছেলে নুরনবীর (২১) বিয়ের আয়োজন চলছিল। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে বর নুরনবী ও কনের বাবা আশরাফ আলীকে পাঁচ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়।

mil

তিনি আরও বলেন, একই দিন রাতে খোকশাবাড়ী ইউনিয়নের খলিশাকুড়া গ্রামের আরিফুল ইসলামের মেয়ে আরিফা খাতুনের (১৬) সঙ্গে বালিঘুগরী গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে সিহাব আলীর (২০) বিয়ের আয়োজন চলছিল। এ সময় ওই বাড়িতে অভিযান চালানো হয়। বর ও কনে অপ্রাপ্তবয়স্ক হওয়ায় এ বাল্যবিয়ে বন্ধ করে দেয়া হয়।



আপনার মতামত লিখুন

আপনার ‘ই-মেইল’ ঠিকানা প্রকাশ করা হবে না, কিন্তু স্টার চিহিৃত ঘরগুলো পূরণ করতেই হবেতেই হবে *

*